The Daily Ajker Prottasha

যেসব কারণে চাকরি ছাড়া লাগতে পারে

0 0
Read Time:3 Minute, 54 Second

ক্যাম্পাস ও ক্যারিয়ার ডেস্ক : মনোযোগ দিয়ে কাজ করছিলেন। সবকিছু ভালোই চলছিল। কিন্তু একটি সময় গিয়ে আপনার মনে হতে পারে যে এই চাকরি ছেড়ে দেওয়া প্রয়োজন। এটি নিয়ে আপনার মধ্যে দ্বিধা-দ্বন্দ্ব কাজ করতে পারে, কারণ আপনার চাকরিটি বেশ ভালো এবং ইতিমধ্যেই স্থায়ী হয়েছে। এমন পরিস্থিতি আসতে পারে যখন মনে হবে, যত ভালোই হোক, চাকরি ছাড়তে হবে। কখন বুঝবেন চাকরিটি ছাড়তে হবে?
নিজের কাজ নিয়ে সত্যিই খুশি নন : নিজের কাজ নিয়ে সন্তুষ্ট হওয়া জরুরি। আপনি যদি নিজের কাজ নিয়ে সন্তুষ্ট না হন তবে চাকরি পরিবর্তন করতে হতে পারে। আপনার এমন একটি চাকরিতে যোগ দেওয়া উচিত যা আপনাকে সকালে উঠতে এবং পুরো সপ্তাহ কাজে যেতে উৎসাহ দেবে। আপনি আনন্দ নিয়ে কাজ করতে পারবেন। নিজেকে ক্লান্ত মনে হবে না।
নেতিবাচক অফিস সংস্কৃতি : আপনি জীবনের বেশিরভাগ সময় কর্মক্ষেত্রে ব্যয় করেন তাই চারপাশে ভালো মনের সহকর্মী থাকা জরুরি, যারা আপনার কাজকে সহনীয় করে তুলবে। বিষাক্ত পরিবেশে কাজ করলে তা আপনাকে চাকরির প্রতি বিদ্বেষমূলক করে তুলবে। কাজ করতে ভালোলাগবে না এবং মনোবলও কমিয়ে দেবে।
দীর্ঘ কর্মঘণ্টা : একটি ভালো চাকরি মানে এই নয় যে আপনি স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি সময় কাজ করবেন। যদি আপনাকে কখনো কখনো দীর্ঘ সময় ধরে কাজ করতে বলা হয় তবে এটি ঠিক আছে। কিন্তু আপনার বস যদি এটিকে অভ্যাস করে তোলেন, তাহলে আপনাকে নতুন করে সিদ্ধান্ত নিতে হতে পারে। আপনার ব্যক্তিগত জীবনে ভারসাম্য রাখতে হবে। কারণ দীর্ঘ কর্মঘণ্টা আপনার মানসিক এবং শারীরিক স্বাস্থ্যকেও প্রভাবিত করতে পারে।
আরো ভালো সুযোগ : আপনি যদি আরও ভালো চাকরির সুযোগ পেয়ে থাকেন তবে তা নিয়ে নিন। সুযোগ প্রত্যাখ্যান করবেন না কারণ আপনার ইতিমধ্যে একটি ভালো চাকরি আছে। আরো অর্জনের চেষ্টা করুন। নতুন লক্ষ্যগুলো অর্জন করুন, যা করার সামর্থ্য আপনার রয়েছে। আপনি সারাজীবন একই জায়গায় থাকলে সামনে এগোতে পারবেন না।
স্বাস্থ্য সমস্যা : আপনি যদি ক্রমাগত স্বাস্থ্য সমস্যায় ভুগতে থাকেন, তবে আপনার চাকরি ছেড়ে দেওয়ার প্রয়োজন হতে পারে। আপনি হয়তো চাকরির কারণে অনেক বেশি মানসিক চাপ অনুভব করছেন, যার ফলে বড় ধরনের স্বাস্থ্য সমস্যা হচ্ছে। আপনার যদি কিছু সময়ের জন্য পর্যাপ্ত সঞ্চয় থাকে তবে সুস্থ হয়ে ওঠার জন্য কিছু সময় বিশ্রামে যেতে পারেন।
ডিগ্রির জন্য : আপনি যদি আরও জ্ঞান অর্জন করতে এবং পড়াশোনায় ফিরে যেতে চান তবে চাকরিটি ছেড়ে দিতে হতে পারে। কারণ পড়াশোনা ও চাকরি একসঙ্গে চালিয়ে গেলে দুই দিকেই কম মনোযোগী হয়ে যেতে পারেন। তাই সবচেয়ে ভালো হয় পড়াশোনায় সম্পূর্ণ মনোনিবেশ করে ডিগ্রি অর্জনের পর আবার নতুন করে চাকরিতে যোগদান করা।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %

Average Rating

5 Star
0%
4 Star
0%
3 Star
0%
2 Star
0%
1 Star
0%

Leave a Reply

Your email address will not be published.