ঢাকা ০৮:০২ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এপ্রিলেই শেষ হবে ভাঙ্গা-নড়াইল-যশোর রেলপথের কাজ

  • আপডেট সময় : ০১:২১:৪৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • ৩০ বার পড়া হয়েছে

নড়াইল সংবাদদাতা : সেনাবাহিনীর প্রধান জেনারেল এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ বলেছেন, সরকারের তরফ থেকে যে কোনো উন্নয়ন কাজের সুযোগ পেলে সেনাবাহিনী সর্বোচ্চ পেশাগত দক্ষতার মাধ্যমে তা করে থাকে। ঢাকা-ভাঙ্গা-নড়াইল-যশোর রেলপথ নির্মাণ কাজের ক্ষেত্রে তার ব্যতিক্রম হবে না। প্রকল্পটির মেয়াদ আগামী জুন মাস পর্যন্ত। তবে আশা করি, চলতি বছরের এপ্রিলের মধ্যেই এ রেলপথ নির্মাণ কাজ শেষ হবে। তারপর উদ্বোধন করা হবে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে নড়াইল রেলস্টেশন নির্মাণ কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি। এর আগে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে হেলিকপ্টারে করে নড়াইলে এসে পৌঁছান সেনাপ্রধান। এসময় জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আশফাকুল হক চৌধুরী ও জেলা পুলিশ সুপার মোহা. মেহেদী হাসান তাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান। পরে নড়াইল শহরে নির্মিত চারলেন সড়কের কাজ পরিদর্শনসহ বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম পরিদর্শন করেন সেনাপ্রধান। দুপুর ১২টার দিকে পৈতৃকভিটা লোহাগড়া উপজেলার করফা গ্রামে যান তিনি। সেখানে আলহুদা জামে মসজিদের ভবন উদ্বোধন করে বৃক্ষরোপণ করেন এম শফিউদ্দিন আহমেদ। এছাড়া বাবার নামে প্রতিষ্ঠিত নবনির্মিত হাসপাতাল পরিদর্শন করেন তিনি। পরে লোহাগড়ায় মধুমতি আর্মি ক্যাম্পে শীতবস্ত্র বিতরণ ও মেডিকেল ক্যাম্প উদ্বোধন করেন সেনাপ্রধান। এছাড়া মল্লিকপুর সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ‘অধ্যাপক শেখ মো. রোকন উদ্দীন আহমেদ’ মাল্টিপারপাস হল উদ্বোধন করেন তিনি। এসব কর্মসূচিতে সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

যোগাযোগ

সম্পাদক : ডা. মোঃ আহসানুল কবির, প্রকাশক : শেখ তানভীর আহমেদ কর্তৃক ন্যাশনাল প্রিন্টিং প্রেস, ১৬৭ ইনার সার্কুলার লার রোড, মতিঝিল থেকে মুদ্রিত ও ৫৬ এ এইচ টাওয়ার (৯ম তলা), রোড নং-২, সেক্টর নং-৩, উত্তরা মডেল টাউন, ঢাকা-১২৩০ থেকে প্রকাশিত। ফোন-৪৮৯৫৬৯৩০, ৪৮৯৫৬৯৩১, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৭৯১৪৩০৮, ই-মেইল : [email protected]
আপলোডকারীর তথ্য

এপ্রিলেই শেষ হবে ভাঙ্গা-নড়াইল-যশোর রেলপথের কাজ

আপডেট সময় : ০১:২১:৪৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

নড়াইল সংবাদদাতা : সেনাবাহিনীর প্রধান জেনারেল এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ বলেছেন, সরকারের তরফ থেকে যে কোনো উন্নয়ন কাজের সুযোগ পেলে সেনাবাহিনী সর্বোচ্চ পেশাগত দক্ষতার মাধ্যমে তা করে থাকে। ঢাকা-ভাঙ্গা-নড়াইল-যশোর রেলপথ নির্মাণ কাজের ক্ষেত্রে তার ব্যতিক্রম হবে না। প্রকল্পটির মেয়াদ আগামী জুন মাস পর্যন্ত। তবে আশা করি, চলতি বছরের এপ্রিলের মধ্যেই এ রেলপথ নির্মাণ কাজ শেষ হবে। তারপর উদ্বোধন করা হবে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে নড়াইল রেলস্টেশন নির্মাণ কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি। এর আগে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে হেলিকপ্টারে করে নড়াইলে এসে পৌঁছান সেনাপ্রধান। এসময় জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আশফাকুল হক চৌধুরী ও জেলা পুলিশ সুপার মোহা. মেহেদী হাসান তাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান। পরে নড়াইল শহরে নির্মিত চারলেন সড়কের কাজ পরিদর্শনসহ বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম পরিদর্শন করেন সেনাপ্রধান। দুপুর ১২টার দিকে পৈতৃকভিটা লোহাগড়া উপজেলার করফা গ্রামে যান তিনি। সেখানে আলহুদা জামে মসজিদের ভবন উদ্বোধন করে বৃক্ষরোপণ করেন এম শফিউদ্দিন আহমেদ। এছাড়া বাবার নামে প্রতিষ্ঠিত নবনির্মিত হাসপাতাল পরিদর্শন করেন তিনি। পরে লোহাগড়ায় মধুমতি আর্মি ক্যাম্পে শীতবস্ত্র বিতরণ ও মেডিকেল ক্যাম্প উদ্বোধন করেন সেনাপ্রধান। এছাড়া মল্লিকপুর সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ‘অধ্যাপক শেখ মো. রোকন উদ্দীন আহমেদ’ মাল্টিপারপাস হল উদ্বোধন করেন তিনি। এসব কর্মসূচিতে সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।