রবি. ডিসে ৮, ২০১৯

১ সোনা, ২ রুপা ও ১৩ ব্রোঞ্জের দিন

১ সোনা, ২ রুপা ও ১৩ ব্রোঞ্জের দিন

Last Updated on

ক্রীড়া ডেস্ক : এসএ গেমসে আনন্দ-বিষাদ মিলিয়ে মোটামুটি একটা দিন কাটল বাংলাদেশের। প্রথম সোনা জয়ের আনন্দ ছিল। প্রাপ্তির তালিকায় ছিল রুপা, ব্রোঞ্জ। শেষ বিকেলে ফুটবলে হেরে যাওয়ার বিষাদও সঙ্গী। সব মিলিয়ে বাংলাদেশের অ্যাথলেটদের এ পর্যন্ত অর্জন ১টি সোনা, ২টি রুপা ও ১৩টি ব্রোঞ্জসহ ১৬টি পদক। তায়কোয়ান্দোয় সকালেই মিলেছিল সোনার দেখা। সাদদোবাদোর ইন্টারন্যাশনাল স্পোর্টস কমপ্লেক্সে সোমবার ২৯ (প্লাস) বয়সীদের ইভেন্ট পুমসে বাংলাদেশকে প্রথম সোনার পদক এনে দেন দিপু চাকমা। পরে পুমসে পেয়ারে মৌসুমী আক্তারকে নিয়ে ব্রোঞ্জ পান দিপু।
এছাড়া ছেলেদের পুমসে এককে (১৭-২৩ বয়সী) কামরুল ইসলাম ও মেহেদী হাসান (২৩- ২৯ বয়সী) ব্রোঞ্জ পান। পুমসে পেয়ারে (১৭-২৩) ব্রোঞ্জ এনে দেন নুরুদ্দিন হোসেন ও রুমা খাতুন। আর মেয়েদের পুমসে একক (১৭-২৩) আনিকা আক্তার ও নুরুন্নাহার আক্তার (২৩-২৯) ব্রোঞ্জ পান।
দিপুর আগেই বাংলাদেশকে প্রথম পদকের স্বাদ এনে দেন হুমায়রা আক্তার অন্তরা। কারাতের মেয়েদের ইনডিভিজ্যুয়াল কাতা ইভেন্ট থেকে ব্রোঞ্জ পান অন্তরা। ছেলেদের ইনডিভিজ্যুয়াল কাতায় ব্রোঞ্জ জেতেন হাসান খান সানও। ছেলে ও মেয়েদের দলীয় কাতা থেকেও ব্রোঞ্জ পেয়েছে বাংলাদেশ। পুরুষ একক কুমিতে অনূর্ধ্ব-৫৫ কেজিতে মোস্তফা কামাল,মেয়েদের একক কুমিতে অনূর্ধ্ব-৫৫ কেজিতে মাউনজেরা বর্ণা রুপা জিতেন। এছাড়া পুরুষ অনূর্ধ্ব-৮৪ কেজি কুমিতে মোহাম্মদ রমজান, ৮৪ (প্লাস) কেজিতে আতিকুর রহমান, মেয়েদের অনূর্ধ্ব-৫০ কেজিতে ফাহমিদা আক্তার ব্রোঞ্জ পেয়েছেন। পুরুষ ভলিবলে ব্রোঞ্জ নির্ধারণী ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে ৩-১ সেটে হারে বাংলাদেশ। প্রথম সেট ২৫-২৩ ব্যবধানে জয়ের পর তিন সেট ২৫-২০, ২৫-১৬, ২৫-২১ পয়েন্টে হারে আলি পোর আরোজির দল। শেষ বিকেলে হতাশ করে ফুটবল দল। কাঠমান্ডুর দশরথ স্টেডিয়ামে নিষ্প্রাণ খেলে ভুটানের কাছে ১-০ গোলে হারে জেমি ডের দল। ৬৫তম মিনিটে ভুটানের ফরোয়ার্ড চেনচো গেইলশেনের করা গোলটি আর শোধ করতে পারেননি জামাল-জীবনরা। অনেক প্রত্যাশার ফানুস উড়িয়ে হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে দল।

Please follow and like us:
3