শনি. আগ ১৭, ২০১৯

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলার ২ আসামি বন্দুকযুদ্ধে নিহত

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলার ২ আসামি বন্দুকযুদ্ধে নিহত

Last Updated on

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলায় ঈদের আগের দিন সন্ধ্যায় প্রতিবেশীর ঘরে হাতে মেহেদি রাঙাতে যাওয়া স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলার দুই আসামি কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন।
সদর থানার ওসি ছগির মিয়া জানান, গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে দক্ষিণ রাজাপুরের জনতা বাজার এলাকায় গোলাগুলিতে তারা নিহত হন। তারা হলেন সদর উপজেলার চরসামাইয়া ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সৈয়দ আহম্মেদের ছেলে আল আমিন (২৭) ও কামাল মিস্ত্রির ছেলে মঞ্জুর আলম (২৫)।
গত রোববার সন্ধ্যায় ষষ্ঠ শ্রেণি পড়ুয়া দুই বোন প্রতিবেশী এক নারীর কাছে হাতে মেহেদি রাঙাতে গেলে তাদের একজনকে কৌশলে ডেকে নিয়ে দুইজন মিলে ধর্ষণ করেন বলে অভিযোগ। পরে স্থানীয়রা তাকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে। তাকে বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় আল আমিন ও মঞ্জুর আলমের বিরুদ্ধে মামলা হয়। জেলার পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার সাংবাদিকদের বলেন, রাতে মেঘনা তীরে দুই দল জলদস্যু গোলাগুলি করছে বলে খবর পেয়ে পুলিশের টহল দল ঘটনাস্থলে যায়।

“জলদস্যুরা পুলিশের ওপর গুলি ছোড়ে। পুলিশ আত্বরক্ষার্থে পাল্টা গুলি করে। পরে সেখানে দুটি লাশ পাওয়া গেছে। লাশ দুটি হাসপাতালে নেয়ার পর শনাক্ত হয় তারা হলেন ধর্ষণ মামলার আসামি আমিন ও মঞ্জুর।” লাশের পাশে দেশি বন্দুক ও কার্তুজও পাওয়া গেছে বলে তিনি জানান। তাদের বিরুদ্ধে থানায় মাদকসহ একাধিক মামালা রয়েছে বলে জানিয়েছেন ওসি ছগির। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ভোলা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

Please follow and like us:
2