বিনামূল্যে বসতঘর উপহার বিশ্বে নতুন সূচনা: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

বিনামূল্যে বসতঘর উপহার বিশ্বে নতুন সূচনা: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

সিলেট প্রতিনিধি : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, ‘মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে দেশের গৃহহীন-ভূমিহীনদের বিনামূল্যে নবনির্মিত বসতঘর দেওয়ার বিষয়টি বিশ্বে নতুন সূচনা। জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে আরেক ধাপ এগিয়ে গেছে বাংলাদেশ। স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে আমাদের সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।’
গতকাল শনিবার দুপুরে সিলেট জেলার প্রায় দেড় হাজার গৃহহীন-ভূমিহীনের কাছে ঘর হস্তান্তর করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এসময় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সিলেট সদর উপজেলা থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড.একে আব্দুল মোমেন। আরও উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, সাবেক সাংসদ ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী ও জেলা আওয়ামী লীগে সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান।
পররাষ্ট্রমন্ত্রী এসময় আরও বলেন, ‘দেশের গৃহহীন-ভূমিহীনদের জন্য বিনামূল্যে বসতঘর নির্মাণ প্রকল্প শুরু হয়েছে। ধাপে ধাপে এই কার্যক্রম আরও বৃদ্ধি পাবে। মানুষের কল্যাণের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এজন্য আমরা গর্বিত। সব সমস্যা পর্যায়ক্রমে সমাধান করে বাংলাদেশকে আরও এগিয়ে নিতে সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। মন্ত্রণালয়ের সহকর্মীরা একদিনের বেতন এই প্রকল্পে দান করতে পেরে আমরা খুবই আনন্দিত ও গর্বিত। এই প্রকল্প শেষ হলে শিক্ষা ও স্বাস্থ্যখাতের উন্নতির জন্য কাজ শুরু করবে সরকার।’
উল্লেখ্য, মুজিববর্ষ উপলক্ষে ৬৬ হাজার ১৮৯ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও ঘর উপহার দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল শনিবার প্রথম দফায় দেশের ৪৯২টি উপজেলার অসহায়-বঞ্চিত মানুষদের এসব ঘর হস্তান্তর করা হয়েছে।

Please follow and like us: