ফিকার জরিপে উঠে এলো বিপিএলে পারিশ্রমিকের সমস্যা

ফিকার জরিপে উঠে এলো বিপিএলে পারিশ্রমিকের সমস্যা

ক্রীড়া প্রতিবেদক : বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক সংক্রান্ত ঝামেলার ব্যাপারটি প্রকাশ্যে এলো আবারও। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটারদের সংগঠন ফিকার জরিপে উঠে এসেছে, সাম্প্রতিক সময়ে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক নিয়ে সমস্যা হয়েছে ৬টি টুর্নামেন্টে। সেই তালিকায় আছে বিপিএল। ফিকার সবশেষ বার্ষিক প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, ক্রিকেট বিশ্বজুড়ে ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টগুলোতে খেলা এক-তৃতীয়াংশের বেশি ক্রিকেটারের পারিশ্রমিক পেতে দেরি হয় কিংবা একেবারেই পান না।
যে ৬টি টুর্নামেন্টকে চিহ্নিত করেছে ফিকা, সেখানে আইসিসি পূর্ণ সদস্য দেশগুলোর একমাত্র প্রতিষ্ঠিত লিগ বিপিএল। বাকি টুর্নামেন্টগুলো হলো, গ্লোবাল টি-টোয়েন্টি কানাডা, আবু ধাবি টি-টেন, কাতার টি-টেন, ইউরো টি-টোয়েন্টি স্ল্যাম ও মাস্টার্স চ্যাম্পিয়ন্স লিগ। ফিকার তৈরি করা পুরুষ ক্রিকেটারদের ২০২০ সালের গ্লোবাল এমপ্লয়মেন্ট রিপোর্টে দেখা গেছে, ৩৪ শতাংশ ক্রিকেটার তাদের প্রাপ্য টাকা পেতে ভোগান্তিতে পড়েছেন। বিপিএলে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক নিয়ে একসময় ছিল অভিযোগের পাহাড়। তবে গত কয়েক বছরে সেটি নেই বলেই বারবার দাবি করেছে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল। এই সময়টায় ক্রিকেটারদের কাছ থেকে অভিযোগও তেমন শোনা যায়নি।
এবার ফিকার জরিপের প্রেক্ষিতে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য সচিব ইসমাইল হায়দার মল্লিক বললেন, নিলামের বাইরে চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারদের ক্ষেত্রে এই ঝামেলা হয়ে থাকতে পারে। “নিলামে দল পাওয়া ক্রিকেটারদের ক্ষেত্রে পারিশ্রমিক পাওয়া নিয়ে সমস্যা হয় না। কারণ, এই বিষয়টি পুরোপুরি বোর্ড দেখে। আমরা তাদের পারিশ্রমিক সম্পূর্ণ মিটিয়ে দেই। যারা সরাসরি ফ্র্যাঞ্চাইজির সঙ্গে চুক্তি করে, তাদের ক্ষেত্রে হতে পারে। সেক্ষেত্রেও যদি কেউ অভিযোগ করে আমরা সব কিছু দেখে সমস্যার সমাধান করি।” ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিকের ব্যাপারে নিবিড়ভাবে সম্পৃক্ত হতে আইসিসিকে তাগিদ দিয়েছে ফিকা। সংগঠনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা টম মোফাটের মতে, অভিভাবক সংস্থা হিসেবে আইসিসির দায়িত্বের মধ্যেই পড়ে এটি। “পদ্ধতিগতভাবেই চুক্তিভঙ্গ এবং ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক না দেওয়ার মতো ব্যাপারগুলোতে জরুরি ভিত্তিতে নজর দেওয়া উচিত। আইসিসির নিয়ন্ত্রণ কাঠামোর মধ্যে যারা আছে, তাদের দেখভালের বাধ্যবাধকতা আইসিসির আছে এবং এই ব্যাপারটি নিয়ে কিছু একটা করার সময় হয়েছে।”
ভারত ও পাকিস্তানসহ অনেক সদস্য দেশের প্লেয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন নেই। এ কারণে ফিকা মনে করে, পারিশ্রমিক নিয়ে ঝামেলায় পড়া ক্রিকেটারদের প্রকৃত সংখ্যা জরিপে আসা সংখ্যার চেয়ে বেশি। প্রতিবেদনে তাই বলা হয়েছে, “এটা পুরোপুরি অগ্রহণযোগ্য আর এই সমস্যার পরিষ্কার সমাধান রয়েছে।” পারিশ্রমিক নিয়ে ভোগান্তির পরও অবশ্য জরিপে অংশ নেওয়া ২৭৭ ক্রিকেটারের ৫৩ শতাংশই বলেছেন, এই লিগগুলোতে ভালো প্রস্তাব পেলে তারা নিজ বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তি প্রত্যাখ্যান করে ফ্রিল্যান্স ক্রিকেটার হয়ে যাওয়ার কথা ভাববেন।

Please follow and like us: