টিকা নিয়ে গুজবে কান না দেওয়ার আহ্বান তাপসের

নিজস্ব প্রতিবেদক : করোনাভাইরাসের টিকা নিয়ে কোনো গুজবে কান না দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস।
গতকাল শনিবার দুপুরে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এমএ আজিজের স্মরণ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, “করোনাভাইরাসের টিকা নিয়ে অনেকে অনেক বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করেছিল। টিকা কিন্তু পৌঁছে গেছে শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বে। এখন ক্রমান্বয়ে টিকা দেওয়া হবে। আমরা সবাই নির্ভয়ে করোনাভাইরাসের টিকা নেব। কেউ ব্ভ্রিান্তি ছড়াবেন না।
“এই টিকার তেমন কোনো পার্শপ্রতিক্রিয়া নেই। হয় তো একটু গা গরম হবে। গুজবে কেউ কান দেবেন না। বাকি সময়টা নিরাপদে থাকতে হলে আমাদের করোনাভাইরাসের টিকা নিতে হবে। যারা বিভ্রান্তি ছাড়াবে তাদের যেন আমরা সঠিকভাবে জবাব দিতে পারি সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।”
ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সদস্য তাপস নেতাকর্মীদেও সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে বলেন, “ভুলে গেলে চলবে না যে ১/১১, পঁচাত্তর আর আসবে না। ষড়যন্ত্রকারীরা সব সময় ষড়যন্ত্র করে যাবে। আমাদেও শৃঙ্খলাবন্ধ থাকতে হবে। দলের মধ্যে কেউ শৃঙ্খলা মানবে না, এটা হবে না। আওয়ামী লীগ শৃঙ্খলাবদ্ধ, শক্তিশালী থাকলে যেকোনো ক্রান্তিলগ্নে আমরা মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পারব, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে পরিস্থিতি মোকাবিলা করে এগিয়ে যেতে পারব।”
তিনি প্রয়াত এমএ আজিজের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, “আমরা গাজী গোলাম মোস্তফা, মুসা সাহেব, হানিফ সাহেব (ঢাকার সাবেক মেয়র মোহাম্মদ হানিফ) সবাইকে শ্রদ্ধা জানাব, স্মরণ করব। তাদের ত্যাগের ওপর আজ আমরা দাঁড়িয়ে আছি। ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে আমার ওপর যে গুরুদায়িত্ব দেওয়া হয়েছে, আমি ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সবাইকে নিয়ে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করে যাব। যেভাবে হানিফ চাচা (মোহাম্মদ হানিফ) করেছিলেন।
“তিনি সিটি করপোরেশনের মেয়র ছিলেন, আবার একই সাথে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের নেতৃত্বও দিয়েছেন। এম এ আজি একজন সাহসী ও নির্লোভ নেতা ছিলেন। তিনি কখনও চাওয়া-পাওয়ার চিন্তা করেননি। তাকে অনুকরণ, অনুসরণ করে তার থেকে আমরা যেন শিক্ষা নিই।”
ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফির সভাপতিত্বে স্মরণ সভায় দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির, এমএ আজিজের ছেলে ২৭ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ওমর বিন আজিজ আকবর তামিম বক্তব্য রাখেন।

Please follow and like us: