চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ আন্দোলনে পুলিশের ধাওয়া, আটক ১

চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫

নিজস্ব প্রতিবেদক : সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৫ বছর করার দাবিতে রাজধানীর শাহবাগে পূর্বঘোষিত সমাবেশ কর্মসূচিতে পুলিশ ধাওয়া দিয়েছে।
গতকাল শনিবার দুপুরে সমাবেশে পুলিশ ধাওয়া দিলে আন্দোলনকারীরা দৌড় দিয়ে জাতীয় গ্রন্থাগারের ভেতরে ঢুকে পড়েন। এসময় একজনকে আটক করে পুলিশ।
আন্দোলনকারীরা জানান, বেলা ১১টার দিকে শাহবাগে জাতীয় জাদুঘরের সামনে অবস্থান নিলে পুলিশ তাদের অবস্থানে বাধা দেয়। পরে তারা মিছিল নিয়ে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে গেলে সেখানেও বাধা দিয়েছে পুলিশ। পরে আবার মিছিল নিয়ে দোয়েল চত্বর হয়ে রাজু ভাস্কর্যে কিছু সময় অবস্থান নিয়ে বেলা দেড়টার দিকে আবারও জাদুঘরের সামনে এসে অবস্থান নেন। সেখানেও পুলিশ তাদের বাধা দেয় বলে অভিযোগ করেছেন তারা। পরে বেলা আড়াইটার দিকে তাদের ধাওয়া দিয়ে সেখান থেকে তুলে দেয় পুলিশ।

পুলিশের ধাওয়া দেওয়ার পর সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক সঞ্জয় দাস জানান, শান্তিপূর্ণ সমাবেশে পুলিশ ধাওয়া দিয়েছে। আমাদের কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাবো।

এদিকে এ ঘটনার পর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করেছে শাহবাগ থানা পুলিশ। শাহবাগ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জাফর আলী বিশ্বাস এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তবে আটক ওই আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীর নাম জানা যায়নি।

আন্দোলনকারীরা জানান, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সুপারিশ ৪০তম বিসিএস পরীক্ষার আবেদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার আগেই বাস্তবায়ন করার কথা ছিল। কিন্তু তা বাস্তবায়ন না করায় বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা এ অবস্থান কর্মসূচি শুরু করেছে।

শিক্ষার্থীরা বলেন, অবস্থান কর্মসূচি শুরু হওয়ার পর থেকে ঢাকাসহ কুমিল্লা, রাজশাহী, ময়মনসিংহ থেকে আন্দোলনকারীরা কর্মসূচিতে যোগ দিয়েছেন। অন্যদিকে শাহবাগ থানার কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যরা আন্দোলনকারীদের পাশেই অবস্থান করছেন। আন্দোলনকারীরা জানান, দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত তারা জাদুঘরের সামনে থেকে সরবেন না।

এর আগে আন্দোলনে বাধা দেওয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল হাসান বলেন, ‘আন্দোলনের কারণে রাস্তায় যানজট সৃষ্টি হওয়ায় জনদুর্ভোগ সৃষ্টি হচ্ছে। তাই তাদের বুঝিয়ে বলা হচ্ছে, তারা যেন যানজট সৃষ্টি না করেন।’ পরে তারা শাহাবাগ চত্বর থেকে সরে যান বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

Please follow and like us:
0