কাবুলে আবাসিক এলাকায় রকেট হামলায় নিহত ৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে আবাসিক এলাকায় কয়েকটি রকেট হামলায় অন্তত আটজন নিহত এবং ৩১ জন আহত হয়েছেন। গতকাল শনিবার সকালে কাবুলে কূটনৈতিক এলাকার কাছে ওই হামলা হয়। হামলার পরপরই বিভিন্ন দূতাবাসে সাইরেন বেজে উঠে। আফগান স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র তারিক আরিয়ান জানান, হামলায় অন্তত আট বেসামরিক নাগরিক নিহত এবং ৩১ জন হয়েছেন। তিনি বলেন, ‘সন্ত্রাসীরা একটি ছোট ট্রাকে করে ১৪টি রকেট নিয়ে আসে এবং ট্রাক থেকেই সেগুলো আবাসিক এলাকার দিকে ছোড়ে। কিভাবে তারা এতগুলো রকেট নিয়ে নগরীতে প্রবেশ করলো তা খুঁজে বের করতে তদন্ত শুরু হয়েছে।’ ঘটনাস্থল থেকে পাঁচটি মৃতদেহ এবং আহত ২১ জনকে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হামলার সময়ের বেশ কিছু ছবি ছড়িয়ে পড়েছে। ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া কয়েকটি ছবিতে রকেটের আঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত গাড়ি, ভেঙ্গে পড়া জানালা ও আবাসিক ভবনের দেয়ালে বড় গর্ত দেখা যায়।
ফেসবুকে সব থেকে বেশি ভাইরাল হওয়া ছবিতে ছোট দুই ভাই-বোনকে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যাচ্ছে। কর্মকর্তারা জানান, ওই দুই ভাই-বোন নিজ বাড়িতেই রকেটের আঘাতে নিহত হয়েছে। একটি রকেট ইরানের দূতাবাসের খুব কাছে গিয়ে আঘাত হানে। বিস্ফোরণে রকেটের ভেতরে থাকা ধাতব টুকরা দূতাবাসের মূলভবনের দেয়ালেও আঘাত করেছে। তবে ওই ঘটনায় দূতাবাসের কেউ আহত হননি বলে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।
কাতারের রাজধানী দোহায় আফগান সরকার ও তালেবানের মধ্যে শান্তি আলোচনা শুরু হওয়ার পর থেকেই দেশটিতে তােেলান ও অন্যান্য সন্ত্রাসী দলের হামলা অনেক বেড়ে গেছে। বিশেষ করে রাজধানী কাবুলে। এ মাসের শুরুতে কাবুল ইউনিভার্সিটি ক্যাম্পাসে হামলায় ৩৫ জন নিহত এবং অর্ধশত মানুষ আহত হন। ইসলামিক স্টেট (আইএস) ওই হামলার দায় স্বীকার করে। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রী মাইক পম্পেওর শনিবার কাতার যাওয়ার কথা। সেখানে তিনি আফগান কূটনীতিক এবং তালেবান প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করবেন।

Please follow and like us: